আজকাল এমন কেউ নেই ফেসবুক একাউন্ট নেই কিংবা ফেসবুক ব্যবহার করে না। ফেসবুক ব্যবহারকারী বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে নতুন একটি সমস্যা হচ্ছে ফেসবুক একাউন্ট হ্যাকিং। বিভিন্ন সময় আমরা নানা কারণে ফেসবুক হ্যাকিং এর শিকার হয়ে থাকি। আজ এই টিউটোরিয়ালটি দেত্তয়া হচ্ছে সাবধানতা অবলম্বন করার জন্য। সকল জিনিষেরই ভালো মন্দ দুই দিকই আছে। ভালো দিক মন্দ দিক। যে যেটা গ্রহণ করে।
শুধুমাত্র শিক্ষামূলক উদ্দেশ্যে প্রকাশিত। কোন প্রকার দায়ভার টিউনারের নেই। সম্পূর্ণ নিজ দায়িত্বে টিউনটি পাঠ করবেন।
lets start!
Log out from facebook.


প্রথমে fb login পেঁজই Forgot your password ক্লিক করুন।

এবার নতুন আরো একটা form আসবে!
"Identify Your Account.
To reset your password, please first identify your account.
Email, Phone or Username
OR
Your name
[কাঙ্খিত ব্যবহার কারীর user name/email লিখুন]

A friends name
[এখানে তার জে কোন একটা friend এর নাম লিখুন]

search বাটনে ক্লিক করুন।

এখন একটি একাউন্ট ব্যবহার কারীর ছবি এসেছে। আপনার কাঙ্খিত ব্যক্তি হলে link e click korun.
New page e, No longer have access to these? এ ক্লিক করুন।

পরবর্তী পৃষ্ঠায় নতুন ইমেইল ঠিকানা দিন।

পরবর্তী পৃষ্ঠায় ব্যবহারকারীর security question উত্তর এখানে দিতে হবে।
কিন্তু আপনি কী তা জানেন? অতএব উত্তর ভুল দিন পর পর তিন বার।
ভুল যেহেতু হয়েছে তার মাসুল দিন।
again ইমেইল ঠিকানা এবং ব্যবহার কারীর নাম লিখুন। একটি মেইল আসবে আপনার ঠিকানায়।

সাধারণত সর্বোচ্চ ৭ দিনের মধ্যে mail আসে ফেসবুক থেকে।এরপর একটি লিংক দেবে আপনাকে। সেই লিংক ধরে ধরে 3step e যেতে হবে সামনের দিকে।
পূর্ববর্তী ব্যবহার কারীরসাথে ফেসবুক একাউন্টে সংযোগ আছে এমন তিন জনের কাছে কোড যাবে। সেই কোড বসিয়ে দিলেই ব্যস kam kothom।
কিন্তু এই তিনজনের কোড পাবেন কী ভাবে? এজন্য তিনটি fake একাউন্ট বানিয়ে রাখুন এবং তার সাথে আগে থেকেই ফেসবুকে friend hisab e যোগ করে রাখুন। এভাবেই কোন প্রকারের হ্যাকিং এর নিয়ম কানুন না মেনে ফেসবুক একাউন্ট নিয়ে আসতে পারেন দখলে। টিউটোরিয়াল তো শেখা হল এবার নিজে নিরাপদে থাকবেন কী ভাবে? যখন তথন অচেনা কোন ফেসবুক ব্যবহার কারীকে এড করবেন না। পরিচিত কেউ ফেন্ড্র রিকোয়েস্ট পাঠালে আগে বুঝে নিন সেটি সত্যিকারের আপনার পরিচিত কারো একাউন্ট নাকি ভুয়া একাউন্ট!
দয়া করে টিউনটি অপব্যবহার করবেন না। শুধুমাত্র শিক্ষামূলক উদ্দেশ্যে প্রকাশিত। কোন প্রকার দায়ভার টিউনারের নেই। সম্পূর্ণ নিজ দায়িত্বে hack করবেন।